গতিবেগ ঘণ্টায় ১৫০ থেকে ১৬০ কিমি। ইয়াস এর দাপট শুরু : Today Weather Report May24 News18Bangla

ধেঁয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ইয়াশ। গতিবেগ ঘণ্টায় ১৫০ থেকে ১৬০ কিমি।

নিউজ-বাংলা ডেস্ক :- আম্ফানের প্রভাব শেষ হতে না হতেই শুরু হয়ে গেছে পশ্চিমবঙ্গে ঘূর্ণিঝড় ইয়াশ। আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে জানা যায় দীঘা থেকে মাত্র650 মিটার দূরে রয়েছে এই ঘূর্ণিঝড়। 150 থেকে 160 কিলোমিটার বেগে আছেরে পড়বে এই ঝড়।

Today Weather Report May24 News18Bangla


আন্দামান থেকে শক্তিশালী ঝড় ধেয়ে আসছে দীঘা উপকূলবর্তী অঞ্চলের দিকে। এই মুহুর্তের আবহাওয়া থেকে জানা যাচ্ছে 650 কিলোমিটার বেগে আসার কথা ,কিন্তু আবহাওয়া দপ্তর এ ও জানাচ্ছে যে আরো প্রভাবশালী হতে পারে।

ঘন্টায় ক্রমশ বেড়ে চলেছে ইয়াশ এর গতিশক্তি। প্রথম পর্যায়ে আবহাওয়া দপ্তর জানিয়েছিল ঝড় গতিশক্তি 50 থেকে 60 কিলোমিটার।কিন্তু ধীরে ধীরে সময়ের ব্যবধানে ঝাটি আরো শক্তি বাড়িয়ে চলেছে বর্তমানে তার গতিশক্তি রয়েছে 150 থেকে 160 মিটার।এখানেই থেমে থাকবে না আবহাওয়া দপ্তর এ ও জানিয়েছে যে ধীরে ধীরে আরও শক্তি বৃদ্ধি পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে এই ঘূর্ণিঝড়ের।এমন অবস্থায় দীঘার উপকূলবর্তী অঞ্চলের সাধারণ মানুষ এবং মৎস্যচাষীদের নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে পশ্চিমবঙ্গ সরকার।

জানা যাচ্ছে গত কাল রাত থেকে শুরু হয়ে গিয়েছে এই ঝড়ের প্রভাব, সাথে ভারী বৃষ্টি। দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন অঞ্চলে এই ঝড় নিজের প্রভাব বিস্তার করা শুরু করে দিয়েছে। আবহাওয়া দপ্তর জানিয়েছে যে দুপুরের পর থেকে আবহাওয়ার অবস্থা আরো অবনতি হবে। উপকূলবর্তী বাসিন্দাদের সর্তকতা জারি করা হয়েছে। জানানো হয়েছে এই ঝর 20 ফুট উপর পর্যন্ত বিস্তৃত হবে।

এই ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাব মোকাবেলায় মুখ্যমন্ত্রী এবং প্রধানমন্ত্রী উভয় পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে _

জানা যাচ্ছে যে গত আমফানের মতই এবারও মুখ্যমন্ত্রীর নিজে কন্ট্রোলরুম থেকে পুরো রাজ্যের উপর নজরদারি রাখবেন। ইতিমধ্যেই উপকূলবর্তী অঞ্চলে এবং কলকাতা পৌরসভা ঘূর্ণিঝড় মোকাবেলা অঞ্চলে এবং কলকাতা পৌরসভা ঘূর্ণিঝড় মোকাবেলায় প্রস্তুতি শুরু করে দিয়েছে।

এছাড়াও  ঘূর্ণিঝড় মোকাবেলার জন্য কেন্দ্র সরকার যথেষ্ট পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে  

বঙ্গোপসাগর থেকে উৎপন্ন হওয়া এই ঘূর্ণিঝড় ইয়াশ আরো শক্তি সঞ্চয় করছে। ফলে এই অবস্থা মোকাবিলার জন্য গত রবিবার প্রধানমন্ত্রী বৈঠক করেছেন।

বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ সহ বিভিন্ন দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রীরা । কল মন্ত্রীদের মতামত  নিয়েই বৈঠক সারলেন প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদি।

পাশাপাশি তিনি প্রতিটি অঞ্চলের প্রধান কর্মকর্তাদের নিজস্ব অঞ্চলে স্থানীয় ভাষার মাধ্যমে প্রচার কার্যে জোর দেওয়ার কথা জানিয়েছেন। উপকূলবর্তী অঞ্চলে মৎস্য চাষীদের সমুদ্রের নাম আর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছেন। এছাড়াও বিদ্যুৎ বিভাগের সচিব দের দ্রুত পরিষেবা স্বাভাবিক রাখার কথা জানিয়েছেন।

বিপর্যয় মোকাবিলার জন্য গঠিত 46 টি দলের মধ্যে আজ ই 13 দল নিজেদের কাজে লেগে পরেছে।

এছাড়াও কড়া সুরক্ষার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

হেলিকপ্টার সহ সমুদ্র উপকূলবর্তী এলাকাগুলিতে জাহাজসহ প্রস্তুত রয়েছে  ভারতীয় নৌ-বাহিনী।

রবিবার বৈঠকের পর তিনি নিজেই টুইটারের মাধ্যমে এমন বার্তা ঘোষণা করেন।তিনি লেখেন, ‘ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের ফলে সম্ভাব্য পরিস্থিতি মোকাবিলার প্রস্তুতি পর্যালোচনা করা হয়েছে। প্রভাবিত এলাকার বাসিন্দাদের সাহায্য করার জন্য কি কি উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে, তা জানানো হয়েছে’।

তিনি আরও জানিয়েছেন যে – ‘নিরাপদ জায়গায় মানুষকে দ্রুত সরিয়ে নিয়ে যাওয়া, বিদ্যুৎ ও যোগাযোগ ব্যবস্থা যাতে বিঘ্নিত না হয় তা নিশ্চিত করার উপর গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। ঘূর্ণিঝড়ের কারণে সংশ্লিষ্ট এলাকার কোভিড-১৯ এ সংক্রমিতদের চিকিৎসায় যাতে ব্যাঘাত না ঘটে, সেদিকে গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। সকলের নিরাপত্তা ও কল্যাণ কামনা করি’।

আজকের আবহাওয়া :-

সোমবার কলকাতা শহরে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৩ ডিগ্রি সেলসিয়াসের আশেপাশে এবং সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ২৭ ডিগ্রি সেলসিয়াসের আশেপাশে। সকালের দিকে এলাকার কয়েকটি জায়গায় একবার বজ্রবিদ্যুৎ সহ ঝড় এবং রাতের দিকে ভারি বজ্রবিদ্যুৎ সহ ঝড়ের সম্ভাবনা রয়েছে। ইয়াসে আগমনের প্রভাব দেখা যাবে সোমবার থেকেই।

Leave a Comment